সময় সংবাদ

আগৈলঝাড়ায় শৈত্য প্রবাহে জনজীবন বিপর্যস্ত মারা যাচ্ছে পোল্ট্রি মুরগী….

অপূর্ব লাল সরকার, আগৈলঝাড়া (বরিশাল) থেকে : বরিশালের আগৈলঝাড়ায় বয়ে যাওয়া কয়েকদিনের টানা শৈত্য প্রবাহ ও ঘণ কুয়াশার কারণে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পরেছে। মারা যাচ্ছে পোল্ট্রি ফার্মের মুরগী। শৈত্য প্রবাহের কারণে উপজেলার রাহুৎপাড়া গ্রামের একটি পোল্ট্রি ফার্মের ৫ শতাধিক মুরগী মারা গেছে।

ফার্ম মালিক বাহাউদ্দিন মোল্লা জানান, দীর্ঘদিন যাবৎ পোল্ট্রি ফার্মে বিদ্যুৎ সংযোগ না পাওয়ায় লাইট জ্বালাতে না পেরে শীতে তার ফার্মের মুরগীগুলো মারা যাওয়ায় ব্যবসায়িকভাবে তিনি অনেক ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছেন।

শৈত্য প্রবাহের কনকনে ঠান্ডা ও ঘণ কুয়াশায় শ্রমজীবি ও নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারের লোকজন পরেছে মহাবিপাকে। শনিবার দুপুর পর্যন্ত সূর্যের দেখা মেলেনি। শীতের তীব্রতায় ভিড় বাড়ছে পুরোনো কাপড়ের দোকানে। শীতের কারণে শিশু এবং বয়োবৃদ্ধদের ঠান্ডাজনিত রোগবালাই বেড়েই চলছে।

ঠান্ডা জ্বর, সর্দি কাশি, হাঁপানি ও ডায়রিয়ার প্রকোপ বেড়েছে। হাসপাতালে প্রতিদিনই শীতজনিত রোগীর সংখ্যা বৃদ্ধি পাচ্ছে। অধিক কুয়াশার কারণে জমির বীজ ধান পুড়ে যাচ্ছে।

কনকনে শীত ও প্রবল ঠান্ডা বাতাসের কারণে সন্ধ্যার পরপরই রাস্তা-ঘাট ও হাট-বাজারে লোকজনের উপস্থিতি কমে যাচ্ছে। তীব্র শীত ও কুয়াশার কারণে দিনমজুর শ্রেণীর মানুষ তাদের কর্মস্থলে কাজ করতে পারছে না। ব্যাহত হতে চলেছে চলতি মৌসুমে ইরি-বোরো আবাদ ও উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Read In English»
Close