অন্যান্য

নিজের স্কুলের ছাত্রীকে বিয়ে করলেন ছাত্রীর দিগুন বয়সের শিক্ষক !

নিজের স্কুলের ছাত্রীকে বিয়ে করেছেন এক স্কুলশিক্ষক।এই ঘটনা আজ নতুন নয় । সারাদেশে প্রতিদিনই ঘটে চলছে এই ধরনের ঘটনা । এবার ১৪ বছর বয়সী অষ্টম শ্রেণীর নিজ ছাত্রীকে বিয়ে করেছেন,

সাইফুল ইসলাম (২৮) নামের এক স্কুলশিক্ষক । আজ বুধবার (৬জুন) আনুষ্ঠানিকভাবে বালিকা বধূকে ঘরে তুলবেন ওই শিক্ষক। মধ্যরাতে নিকটাত্মীয়দের সঙ্গে নিয়ে বিয়ের কাজ সম্পন্ন করেন তিনি।
বিয়ে পড়ান ওই এলাকার কাজী মো. আলাউদ্দিন প্রামাণিক।ঘটনাটি ঘটেছে নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলায় দ্বারিকুশি গ্রামে । জানা যায়, দ্বারিকুশি গ্রামের আবদুর রহিম ভূঁইয়ার ছেলে সাইফুল ইসলাম (২৮)

জোনাইল এমএল উচ্চ বিদ্যালয়ে খণ্ডকালীন শিক্ষক হিসেবে কর্মরত আছেন সম্প্রতি তিনি একই স্কুলের অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী রিয়া খাতুনকে বিয়ের জন্য তার বাবা পার্শ্ববর্তী চর গোবিন্দপুর গ্রামের নুরুল হোসেন নুরুর কাছে প্রস্তাব দেন।

মেয়ের বাবা প্রস্তাবে রাজি হওয়ায় গত রোববার রাতে বিয়ে সম্পন্ন হয়। কনে রিয়ার অমতে জোর করে এ বিয়ে দেয়া হয়েছে।এ ব্যাপারে স্কুলশিক্ষক সাইফুল ইসলাম বলেন, পছন্দ হয়েছে তাই কালেমা পড়িয়ে রেখেছি।

মেয়ের বয়স ১৮ বছর হওয়ার পর ঘরে তুলে আনবো। তবে বিয়ের কিছু আনুষ্ঠানিকতা থাকে যা সমাজে করতে হয়। তাই সেটাই করেছি।বিষয়টি স্বীকার করে ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. আশিকুর জামান বলেন,

এ ঘটনার পর স্কুলের সিনিয়র শিক্ষকদের ডেকে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। খণ্ডকালীন শিক্ষক সাইফুল ইসলামকে আর স্কুলে আসতে দেয়া হবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close